নিউইয়র্কের নর্থ ব্রঙ্কসে ঐতিহ্যবাহী রয়েল বেঙ্গল পথমেলা অনুষ্ঠিত

নিউইয়র্কের বাঙালী অধ্যুষিত নর্থ ব্রঙ্কসে অনুষ্ঠিত হয়ে গেল ঐতিহ্যবাহী রয়েল বেঙ্গল পথমেলা। গত রোববার বাংলাদেশী কমিউনিটি অব নর্থ ব্রঙ্কসের উদ্যোগে এবং বাংলাদেশী-আমেরিকান কমিউনিটির কাউন্সিলের সহায়তায় আয়োজিত স্মরণকালের এ পথ মেলায় নেমেছিল মানুষের ঢল। নর্থ ব্রঙ্কসের ২০৪-২০৫ ষ্ট্রিটের জমজমাট এ মেলা মাতিয়ে রাখে দেশ-প্রবাসের জনপ্রিয় শিল্পীরা। দিনব্যাপি শিল্পীদের জমকালো পরিবেশনা উপভোগ করেন মেলায় আসা হাজারো দর্শক। বাঙালী সংস্কৃতি আর দেশীয় পণ্যের জয়গানের মধ্য দিয়ে এ মেলা এদিন দুপুর থেকে শুরু হয়ে চলে সন্ধ্যে ৭ টা পর্যন্ত।

দুপুর আড়াই টায় স্থানীয় কংগ্রেসম্যান এডরিয়ান এসপিনাল, নিউইয়র্ক স্টেট জামাল বেইলী, এসেম্বলীওম্যান নেতিশা ফার্নান্ডেজ, কাউন্সিল মেম্বার জিফরী, এটর্নী এলন ক্যাস, এটর্নী ব্রুশ ফিসার, নিউইয়র্ক সিটি পুলিশ ডিপার্টমেন্টের ব্রঙ্কসের ৫২ প্রিসেনক্ট’র ডেপুটি ইন্সপেক্টর থমাস আলপস, বাংলাদেশী কমিউনিটি অব নর্থ ব্রঙ্কসের সভাপতি সিরাজুল ইসলাম খান, সাধারণ সম্পাদক মঞ্জুর চৌধুরী জগলুল, ইভেন্ট কমিটির আহ্বায়ক মো. আব্দুর রহিম ও সদস্য সচিব বোরহান উদ্দিন সহ সংগঠনের কর্মকর্তা ও অন্যান্য অতিথিদের সাথে নিয়ে বেলুন উড়িয়ে মেলার আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন বাংলাদেশী-আমেরিকান কমিউনিটি কাউন্সিলের প্রেসিডেন্ট আইনজীবী মোহাম্মদ এন মজুমদার। এসময় মোহাম্মদ এন মজুমদার বলেন, ২০১২ সালে ঐতিহ্যবাহী রয়েল বেঙ্গল পথমেলার যাত্রা শুরু হয়। মেলার নামটিও তার দেয়া। তিনি বলেন, প্রবাসে বাঙালী সংস্কৃতি আর দেশীয় পণ্যকে মূলধারায় তুলে ধরার প্রয়াসে এ মেলা এ বিরাট ভূমিকা রাখছে। নতুন প্রজন্মের সাথেও সেতুবন্ধন তৈরী করছে।
উদ্বোধনী পূর্বে একটি বর্ণাঢ্য প্যারেড মেলা এলাকা প্রদক্ষিণ করে। প্যারেডের গ্র্যান্ড মার্শাল ছিলেন এটর্নী এলন ক্যাস। এসময় বিপুল সংখ্যক প্রবাসী বাংলাদেশী প্যারেডে অংশ নেন।